মিয়ানমারে জাতিগত নিধন বন্ধের দাবি নিরাপত্তা পরিষদের

মিয়ানমারে জাতিগত নিধন বন্ধের দাবি নিরাপত্তা পরিষদের

জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের সদস্যরা মিয়ানমার সরকারের প্রতি রাখাইনে রোহিঙ্গা গোষ্ঠীর ওপর নৃশংসতা ও জাতিগত নিধন বন্ধের জোরালো দাবি তুলেছেন।

আবনা ডেস্কঃ জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের সদস্যরা মিয়ানমার সরকারের প্রতি রাখাইনে রোহিঙ্গা গোষ্ঠীর ওপর নৃশংসতা ও জাতিগত নিধন বন্ধের জোরালো দাবি তুলেছেন।
সোমবার নিরাপত্তা পরিষদ রোহিঙ্গা সংকটের অবসান চেয়ে বেশ কিছু প্রস্তাব সহকারে একটি বিবৃতি দিয়েছে। খবর বিবিসি বাংলার।
বিবৃতিতে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেয়ার আহ্বান জানিয়ে এই বর্বরতার তীব্র নিন্দা জানানো হয়।
এই বিবৃতিতে চীনেরও সমর্থন রয়েছে। তবে মিয়ানমারকে নানা বিষয়ে সমর্থন দিয়ে আসা চীন কোনো নিষেধাজ্ঞা আরোপের ব্যাপারে ভেটো প্রদানের অবস্থান থেকে এখনও সরে আসেনি।
বিবৃতিতে রোহিঙ্গা সংকট নিরসনে জাতিসংঘের কর্মকাণ্ডে মিয়ানমারের সহায়তা চাওয়া হয়েছে।
এ ছাড়া কাউন্সিলের পক্ষ থেকে একজন বিশেষ উপদেষ্টা নিয়োগের জন্য জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্টোনিও গুতেরেসের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে।
ওই বিশেষ উপদেষ্টা আগামী ৩০ দিনের মধ্যে মহাসচিবের কাছে বিস্তারিত রিপোর্ট পেশ করবেন।
জাতিসংঘে ব্রিটেনের উপ-রাষ্ট্রদূত জোনাথন অ্যালেন জানান, মিয়ানমার এখন কী ধরনের প্রতিক্রিয়া দেখায় সেটিই তারা পর্যবেক্ষণ করবেন।
চলতি সপ্তাহেই জাতিসংঘ মহাসচিব দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলোর জোট আসিয়ান সম্মেলনে যোগ দেবেন। সেখানেও রোহিঙ্গা ইস্যু থাকবে আলোচনার প্রধান বিষয়।
এদিকে মিয়ানমারে নির্যাতন হামলার ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা প্রস্তাবের দাবি তুলেছে মানবাধিকার গ্রুপগুলো।


আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*

quds cartoon 2018
پیام امام خامنه ای به مسلمانان جهان به مناسبت حج 2016
We are All Zakzaky