বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ স্কুলশিক্ষককে যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকতে বাধা

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ স্কুলশিক্ষককে যুক্তরাষ্ট্রে ঢুকতে বাধা

৭ মুসলিম দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে ঢোকায় ডোনাল্ড ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞা নিয়ে বিশ্বজুড়ে হৈ চৈয়ের মধ্েয সে দেশে যেতে বাধা পেয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এক ব্রিটিশ স্কুলশিক্ষক।

আবনা ডেস্ক : ৭ মুসলিম দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে ঢোকায় ডোনাল্ড ট্রাম্পের নিষেধাজ্ঞা নিয়ে বিশ্বজুড়ে হৈ চৈয়ের মধ্েয সে দেশে যেতে বাধা পেয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এক ব্রিটিশ স্কুলশিক্ষক।
জুহেল মিয়া নামে ওই স্কুলশিক্ষককে ফিরিয়ে দেয়ার সময় তার সঙ্গে অপরাধীদের মতো আচরণ করা হয়েছিল বলে অভিযোগ এসেছে যুক্তরাজ্যের সংবাদপত্রগুলোতে।
২৫ বছর বয়সী জুহেল মিয়া সাউথ ওয়েলসের একটি বিদ্যালয়ের গণিত শিক্ষক। সহকর্মী ও শিক্ষার্থীদের সঙ্গে তিনি নিউইয়র্ক রওনা হয়েছিলেন।
ব্রিটিশ দৈনিক গার্ডিয়ান জানিয়েছে, গত ১৬ ফেব্রুয়ারি আইসল্যান্ডের রাজধানী রিকিয়াভিকে তাকে বিমান থেকে নামিয়ে দেয়া হয়।
দি সান লিখেছে, নিজের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ‘জনপ্রিয় ও শ্রদ্ধেয়’ শিক্ষক হিসেবেই পরিচিত জুহেল মিয়া। তাকে নামিয়ে আনার পর শিক্ষার্থীরা কাঁদছিল।
যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প গত ১০ ফেব্রুয়ারি ৭টি মুসলিম দেশের নাগরিকদের তার দেশে ঢোকায় নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। দেশগুলো হচ্ছে ইরান, ইরাক, সিরিয়া, ইয়েমেন, সুদান, সোমালিয়া ও লিবিয়া।
এর মধ্েযই হেনস্তার শিকার হলেন জুহেল মিয়া, যার বাবা-মা বাংলাদেশি হলেও তিনি যুক্তরাজ্েযর নাগরিক।
তিনি গার্ডিয়ানকে বলেন, আমার পরিবারের কেউ ওই ৭টি দেশের নয়। গত বছরও আমার ভাই ফ্লোরিডা ঘুরে এসেছে। আমি বুঝতে পারছি না, কেন আমার সঙ্গে এমন হলো।
জুহেল বলেন, ফ্লাইট ছাড়ার একটু আগেই এক কর্মকর্তা তার কাছে এসে বলেন, তিনি বিমানে থাকতে পারবেন না। তারপর তাকে পাহারা দিয়ে বিমান থেকে বের করে দেয়া হয়।
বৈধ কাগজপত্র থাকার পর তাকে বাধা দেয়ায় শহর কর্তৃপক্ষ নিজেদের অসন্তোষ প্রকাশ করে লন্ডনে যুক্তরাষ্ট্র দূতাবাসে চিঠি দিয়েছে বলে ইনডিপেডেন্ট জানিয়েছে।


আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*

پیام رهبر انقلاب به مسلمانان جهان به مناسبت حج 1440 / 2019
conference-abu-talib
We are All Zakzaky