?>

কেন ইরাকি মোবিলাইজেশন ফোর্সের উপর ক্ষুব্ধ মার্কিনীরা : চমৎকার একটি বিশ্লেষণ

কেন ইরাকি মোবিলাইজেশন ফোর্সের উপর ক্ষুব্ধ মার্কিনীরা : চমৎকার একটি বিশ্লেষণ

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কোন শক্তিশালী সেনাবাহিনী তৈরি না করে এমন দুর্বল সব বাহিনী তৈরি করে যাদের উপর চাঁদাবাজী করা যায়। তারা যখনই চায় ঐ বাহিনীগুলো পরাজিত হয়। এ কারণেই ইরাক ও আফগান সেনাবাহিনী দায়েশ (আইসিস) ও তালেবানের বিরুদ্ধে পরাজিত হয়েছে।

হলে বাইত (আ.) বার্তা সংস্থা (আবনা): ইরাকি কলামিস্ট ও রাজনৈতিক বিশ্লেষক ‘আহমাদ আব্দুস সাদাহ’ এক টুইটে হাশদাশ শা’বির (ইরাকি মোবিলাইজেশন ফোর্স) উপর মার্কিনীদের ক্ষুব্ধ হওয়ার কারণ বিশ্লেষণ করেছেন।

ঐ টুইটে তিনি লিখেছেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কোন শক্তিশালী সেনাবাহিনী তৈরি না করে এমন সব (দুর্বল) বাহিনী তৈরি করে যাদের উপর চাঁদাবাজী করা যায়। তারা যখনই চায় ঐ বাহিনীগুলো পরাজিত হয়। এ কারণেই ইরাক ও আফগান সেনাবাহিনী দায়েশ (আইসিস) ও তালেবানের বিরুদ্ধে পরাজিত হয়েছে।

তিনি বলেন: হাশদাশ শা’বি শক্তিশালী হওয়াতে ক্ষুব্ধ আমেরিকা। কেননা তারা আমেরিকাকে চাঁদা দিয়ে চলা এবং তাদের সামনে মাথা নত করার মত কোন বাহিনী নয়। তারা মার্কিন পরিকল্পনার আওতায় পরাজিতও হবে না, কেননা মার্কিনীদের ইচ্ছাতে এ বাহিনীর জন্ম হয় নি।

সম্প্রতি যুক্তরাষ্ট্র আল-আনবার প্রদেশের আল-কায়েম শহরে অবস্থিত হাশদাশ শাবি গণবাহিনীর ঘাঁটিতে বোমাবর্ষণ করেছে। মার্কিন বিমান বাহিনী পরিচালিত ঐ বিমান হামলায় হাশদাশ শা’বির ৪ যোদ্ধা শহীদ হয়েছেন।

প্রসঙ্গত, হাশদাশ শা’বি (ইরাকি মোবিলাইজেশ ফোর্স) ইরাকের একটি স্বেচ্ছাসেবী ও গণবাহিনী। বিগত প্রায় ৭ বছর আগে ইরাকের বিভিন্ন শহরে দায়েশের হামলা প্রতিহত করতে আয়াতুল্লাহ সিস্তানির জিহাদে কেফায়ী ফতওয়ার ভিত্তিতে সামরিক বাহিনী হিসেবে ইরাক আর্মির পাশে থাকার লক্ষ্য নিয়ে গঠিত হয় এ বাহিনী। ইরাকের বিভিন্ন গোত্র ও সম্প্রদায়ের সাধারণ মানুষই এ বাহিনীর সদস্য।#176


সম্পর্কিত প্রবন্ধসমূহ

আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*