?>

৯২ আরোহী নিয়ে বিধ্বস্ত ফিলিপাইনের সামরিক বিমান, নিহত ১৭

ফিলিপাইনের দক্ষিণাঞ্চলে রানওয়ে মিস করায় ৯২ আরোহী নিয়ে একটি সি-১৩০ সামরিক বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় ১৭ সেনা সদস্য নিহত হয়েছে। দেশটির সেনাপ্রধান জানিয়েছেন, এখন পর্যন্ত কমপক্ষে ৪০ সেনাকে জীবিত উদ্ধার করা গেছে।


আহলে বাইত (আ.) বার্তা সংস্থা (আবনা) : রোববার ফিলিপাইনের সুলু প্রদেশে এ দুর্ঘটনা ঘটে। সেনাবাহিনীর চিফ অব স্টাফ জেনারেল সিরিলিটো সোবেজানা বলেছেন, উদ্ধারকৃতদের ধ্বংসস্তূপ থেকে টেনে টেনে বের করা হয়েছে।

অধিকাংশ সেনাই গুরুতর আহত হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। বিমানটি বিধ্বস্ত হওয়ার মূল কারণ সম্পর্কে এখনও জানা যায়নি।

চিফ অফ স্টাফ জেনারেল সিরিলিটো সোবেজানা জানিয়েছেন, বিমানটিতে ৯২ জন আরোহী ছিল। রোববার দুপুরের আগে সুলু প্রদেশের পাটিকুলের পাহাড়ি শহর বাঙকাল এলাকায় অবতরণের সময় এটি বিধ্বস্ত হয় বলে উল্লেখ করেছেন সিরিলিটো সোবেজানা।

প্রতিরক্ষা সচিব ডেলফিন লরেনজানা জানিয়েছেন, এখনও উদ্ধারকাজ চলছে। বিমানটিতে তিনজন পাইলট এবং পাঁচ জন ক্রুসহ ৯২ জন লোক ছিল। বাকিরা ছিলেন সেনাবাহিনীর সদস্য।

সোবেজানা জানিয়েছে, বিমানটি দক্ষিণ ক্যাগান দে ওরো শহর থেকে সেনা পরিবহন করছিল। মুসলিম প্রদেশ সুলুতে কয়েক দশক ধরে সরকারি বাহিনী আবু সাইয়াফ জঙ্গিদের বিরুদ্ধে লড়াই করে আসছে। সেখান থেকেই আসছিল এই সেনারা।

সোবেজানা সাংবাদিকদের বলেন, এটি খুব দুর্ভাগ্যজনক। বিমানটি ল্যান্ডিংয়ের সময় রানওয়ে মিস করে ফেলে এবং ফের ওড়ার চেষ্টা করে। কিন্তু ব্যর্থ হয়ে বিধ্বস্ত হয়।

প্রসঙ্গত, বিধ্বস্ত হওয়া লকহিড সি-১৩০ হারকিউলিস বিমানটি মার্কিন সামরিক বাহিনীর অন্যতম সামরিক বিমান ছিল। এ বছর সামরিক সহায়তার অংশ হিসাবে মার্কিন এয়ার ফোর্স বিমানটি ফিলিপাইনের হাতে তুলে দেয়। সূত্র : এপি

342/


আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*