মার্কিন নারীর ইসলাম গ্রহণ

  • News Code : 672301
  • Source : ABNA
Brief

গত বৃহস্পতিবার (১৯ ফেব্রুয়ারি) অষ্টম ইমাম হযরত আলী ইবনে মুসা আর-রেজা (আ.) এর মাজারে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন মার্কিন এক নারী।

আহলে বাইত বার্তা সংস্থা (আবনা) : গত বৃহস্পতিবার ইরানের পবিত্র মাশহাদ নগরিতে অবস্থিত অষ্টম ইমাম হযরত আলী ইবনে মুসা আর-রেজা (আ.) এর মাজারে উপস্থিত হয়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন মার্কিন নারী ‘এলিনা এমিলি’। এ সময় তিনি ‘যায়নাব’ নামটিকে নিজের নতুন নাম হিসেবে বেছে নেন। তিনি বলেন, প্রায় ৪ বছর ধরে আমি ইসলাম সম্পর্কে পড়াশুনা ও গবেষণা করছি। এ ধর্ম সম্পর্কে পরিচিত হওয়ার পর থেকে আমি অন্তরের গভীরে মহান আল্লাহর প্রতি ঈমান এনেছি এবং এ বিষয়টি অনুভব করেছি যে, মানব জাতির জন্য একমাত্র পূর্ণ ধর্ম হচ্ছে ইসলাম। আমি আশাবাদি যে, ইসলামি শিক্ষা এবং ইসলাম ধর্ম থেকে যা কিছু আমি অনুধাবন করেছি কুরআনের আয়াত ও ইসলাম ধর্মের আকর্ষণীয় শিক্ষার মাধ্যমে সেগুলোকে আমার বন্ধু-বান্ধব ও পরিবারের সামনে উপস্থাপন করতে সক্ষম হব। আমি আমার পরিবার ও পরিচিতজনদেরকে যতদূর সম্ভব ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে অবগত করবো এবং তারাও সত্যের অনুসন্ধান শুরু করবে বলে আমি আশা রাখি।
ঐশী সকল নবীই [আ.] এক আল্লাহর প্রতি ঈমান পোষণ করতেন এবং সকল মানুষকে সত্যের প্রতি নির্দেশনা দিতেন –এ কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন : দুঃখজনকভাবে ইঞ্জিল এবং তওরাত নামের যে দু’টি গ্রন্থ বর্তমান যুগে হযরত ঈসা [আ.] ও হযরত মুসা [আ.] এর অনুসারীদের হাতে বিদ্যমান সেগুলো বিকৃতির শিকার এবং তাদের নিকট পরিপূর্ণ কোন গ্রন্থ নেই।
অন্য ধর্মের সাথে ইসলাম ধর্মের পার্থক্যের বিষয়ে এমিলি বলেন : ইসলাম পাওয়ার পর অনুধাবন করবেন, ইসলাম ব্যতীত আর কোন পথ নেই। ইসলাম ধর্মে শুধুমাত্র আল্লাহর উপাসনা করা হয় এবং মুসলমানরা নিজেদেরকে শুধুমাত্র আল্লাহর সাথে সম্পৃক্ত করে। কিন্তু অন্যান্য ধর্মে প্রতিপালকের সন্ধান পাওয়া যায় না এবং ভরসা করা ও আস্থা রাখার মত কিছু তাদের মাঝে নেই। ইসলাম ধর্ম সম্পর্কে পরিচিত হওয়ার পর থেকে সর্বদা চেষ্টা করেছি আমার আত্মার প্রশান্তির জন্য মসজিদসহ ধর্মীয় স্থানসমূহে সময় ব্যয় করার। সেখানে মধুর কণ্ঠে পরিবেশিত পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত থেকে আনন্দ অনুভব করি এবং আমার আত্মা প্রশান্তি অনুভব করে।
এ নও মুসলিম আরো জানিয়েছেন : হিজাব, শুধু একটি পোশাক নয়, একটি বিশ্বাস। হিজাব হচ্ছে মানব স্বভাবের আহবানে সাড়া প্রদান এবং ইসলামি সংস্কৃতি ও সভ্যতার নাম।
তিনি বলেন : ইমাম রেজা [আ.] এর যেয়ারতের সুযোগ লাভ করে আমি অত্যন্ত আনন্দিত এবং এখানে এসে অনুভব করছি যে, আগের চেয়ে আমি মহান আল্লাহর নৈকট্য অর্জনের পথে অগ্রসর হয়েছি।
দ্বিতীয়বারের মত ইমাম রেজা [আ.] এর মাজার যেয়ারতের সুযোগ পেলাম –এ কথা উল্লেখ করে এলিনা এমিলি বলেন : প্রথমবার ইমাম রেজা [আ.] এর মাজার যেয়ারত করে যে প্রশান্তি আমি অনুভব করেছিলাম তার টানেই আমি দ্বিতীয় বারের মত মাশহাদ সফরে এসেছি। মাশহাদ সফরের পূর্বে আমি কোম শহর সফরে সেখানে হযরত মাসুমা [সা. আ.] এর মাজারেও গেছি।
বলাবাহুল্য, এ নও মুসলিম ‘যায়নাব’ নামটিকে নিজের নতুন নাম হিসেবে বেছে নিয়েছেন। এ সময় তাকে সহযোগিতার জন্য ইমাম রেজা (আ.) এর মাজারের বিদেশী যায়েরদের জন্য নির্ধারিত বিভাগের প্রতি ধন্যবাদ জানান তিনি। উপহার হিসেবে তাকে বিভিন্ন বই ও ইংরেজি অনূদিত কুরআন শরিফ প্রদান করা হয়। এলিনা এমিলি ইসলাম ধর্ম গ্রহণের পর আহলে বাইত (আ.) এর মাযহাবকে নিজের অনুকরণীয় মাযহাব হিসেবে গ্রহণ করেছেন।#


আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*

ইসলামের মহান সেনাপতি জে. কাসেম সোলাইমানি ও আবু মাহদি আল-মুহানদিস
We are All Zakzaky
conference-abu-talib
No to deal of the century