পাকিস্তানের শিকারপুরে ভয়াবহ বোমা বিস্ফোরণের প্রতিবাদে মাজমা’র বিবৃতি

  • News Code : 668855
  • Source : নিজস্ব প্রতিবেদক
Brief

জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক অন্যান্য সংস্থার কর্মকর্তাদের প্রতি বিশেষভাবে ‘ইসলামি সমন্বয় সংস্থা’র কর্মকর্তাদের নিকট আমাদের প্রত্যাশা হল, তারা তাদের কর্তব্য পালন করবেন এবং এ ইসলাম বিরোধী ও অমানবিক পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করার পাশাপাশি মধ্যপ্রাচ্যসহ সারা বিশ্ব থেকে উগ্রতাবাদ, সহিংসতা ও সন্ত্রাসবাদ নির্মূল করার লক্ষ্যে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।

জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক অন্যান্য সংস্থার কর্মকর্তাদের প্রতি বিশেষভাবে ‘ইসলামি সমন্বয় সংস্থা’র কর্মকর্তাদের নিকট আমাদের প্রত্যাশা হল, তারা তাদের কর্তব্য পালন করবেন এবং এ ইসলাম বিরোধী ও অমানবিক পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করার পাশাপাশি মধ্যপ্রাচ্যসহ সারা বিশ্ব থেকে উগ্রতাবাদ, সহিংসতা ও সন্ত্রাসবাদ নির্মূল করার লক্ষ্যে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।
আহলে বাইত বার্তা সংস্থা (আবনা) : পাকিস্তানের সিন্ধু রাজ্যের শিকারপুর শহরে শিয়া মুসল্লিদের উপর সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে আহলে বাইত (আ.) বিশ্বসংস্থা (মাজমা)। ঐ বোমা হামলায় ৬০ জনেরও বেশী শিয়া মুসলিম শহীদ হন।
বিবৃতির মূল অংশ :
বিসমিল্লাহির রহমানির রহিম
وَسَيَعْلَمُ الَّذِينَ ظَلَمُوا أَيَّ مُنقَلَبٍ يَنقَلِبُونَ
“নিপীড়নকারীরা শীঘ্রই জানতে পারবে তাদের গন্তব্যস্থল কিরূপ।”
অন্ধ অন্তরের অধিকারী গোঁড়া ব্যক্তিরা পূনরায় তাদের হিংস্র রূপের প্রকাশ ঘটিয়েছে, রক্ত ঝরিয়েছে নিরীহ-নিরাপরাধ মানুষের।
যদিও উগ্রতা ও সহিংসতার ইতিহাস অতি পুরোনো। কিন্তু ঔপনিবেশিক ও পশ্চিমা বিশ্বের গোয়েন্দা সংস্থাগুলো -বিশেষতঃ বিভিন্ন অপরাধের সাথে জড়িত যুক্তরাষ্ট্র, কুদস দখলকারী জায়নবাদীরা এবং বুড়ো শিয়াল ব্রিটেন- এ ধরনের সাম্প্রদায়িক বিভেদ থেকে ফায়েদা হাসিল করে আসছে যুগ যুগ ধরে। এ ধরনের সাম্প্রদায়িক দ্বন্দ প্রসারের ক্ষেত্রেও তারা ছিল অগ্রগামী। আহলে বাইত (আ.) বিশ্বসংস্থা সিন্ধু প্রদেশের শিকারপুর এলাকায় অবস্থিত ‘কারবালা’ ইমামবাড়িতে জুমআর নামাযের পূর্বে মুসল্লিদেরকে লক্ষ্য করে চালানো আত্মঘাতী হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে পাকিস্তানের সকল মাযহাবের অনুসারীদেরকে সন্ধী ও শান্তিপূর্ণ সহাবস্থানের প্রতি আহবান জানায়।
আমরা আশাবাদী যে, পাকিস্তানের দায়িত্বশীল ও বিচক্ষণ জনতা তাদের কর্তব্য পালনার্থে ধৈর্য্যধারণ পূর্বক সকল প্রকার উগ্রতা, হামলা ও হামলার জবাব দান করা থেকে বিরত থাকবে এবং তাদের ন্যায্য অধিকার আদায়ের জন্য আইনের সহায়তা গ্রহণ করবে।
এ মর্মে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক অন্যান্য সংস্থার কর্মকর্তাদের প্রতি বিশেষভাবে ‘ইসলামি সমন্বয় সংস্থা’র কর্মকর্তাদের নিকট আমাদের প্রত্যাশা হল, তারা তাদের কর্তব্য পালন করবেন এবং এ ইসলাম বিরোধী ও অমানবিক পদক্ষেপের তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করার পাশাপাশি মধ্যপ্রাচ্যসহ সারা বিশ্ব থেকে উগ্রতাবাদ, সহিংসতা ও সন্ত্রাসবাদ নির্মূল করার লক্ষ্যে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ করবেন।
আহলে বাইত (আ.) বিশ্বসংস্থা


আপনার মন্তব্য প্রেরণ করুন

আপনার ই-মেইল প্রকাশিত হবে না। প্রয়োজনীয় ফিল্ডসমূহ * এর মাধ্যমে চিহ্নিত করা হয়েছে

*

conference-abu-talib
We are All Zakzaky